ফুটবলে অফসাইড নিয়ে বির্তকের যেন শেষ নেই। গত চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালেও রিয়াল মাদ্রিদের ফরাসি স্ট্রাইকার করিম বেনজেমার গোল বাতিল করা হয় অফসাইডের অজুহাতে, ভিএআর দেখে শেষ পর্যন্ত রেফারি নিজের সিদ্ধান্তে ছিলেন অটুট। তবে আসলে কি গোলটি অফসাইড ছিলো কিনা তা নিয়ে আলোচনা সমালোচনা হয়েছে অনেকদিন। ভিএআর প্রযুক্তি থাকলেও অফসাইড নিয়ে রেফারিদের এমন অনেক সিদ্ধান্ত বিতর্ক  সৃষ্টি করে।  তাই কাতার বিশ্বকাপে এই সমস্যার সম্মুখীন না হওয়ার জন্য আগেভাগেই ফিফা ঘোষণা দিয়ে রেখেছিলো ‘সেমি অটোমেটেড অফসাইড’নামক নতুন এক প্রযুক্তি ব্যবহারের। তবে এই প্রযুক্তির ব্যবহার উপভোগ করার জন্য কাতার বিশ্বকাপ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে না ফুটবল ভক্তদের।

 

আগামী ১০ আগস্ট সুপার কাপে রিয়াল মাদ্রিদ বনাম আইনট্রাখট ফ্রাঙ্কফুর্টের ম্যাচে ব্যবহার করা হবে এই নতুন প্রযুক্তি। বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা উয়েফা।

 

যদিও এর আগেও এ প্রযুক্তির ব্যবহার হয়েছে। তবে সেটা পরীক্ষামূলকভাবে। গত ফেব্রুয়ারিতে আবুধাবিতে ফিফা ক্লাব বিশ্বকাপ এবং কাতারে গত ডিসেম্বরে আরব কাপে সেমি অটোমেটেড অফসাইড সিস্টেম পরীক্ষামূলকভাবে ব্যবহার করা হয়।

 

প্রযুক্তিটির বিষয়ে উয়েফার প্রধান রেফারিং কর্মকর্তা রবার্তো রোসেত্তি এক বিবৃতিতে বলেন, ‘খেলার মানের উন্নয়ন করতে এবং রেফারিকে সাহায্য করতে উয়েফা নিত্যনতুন প্রযুক্তির খোঁজ করছে। এই উদ্ভাবনী প্রযুক্তি ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারির (ভিএআর) দলকে খেলার গতি ব্যাহত না করে অফসাইড নিয়ে দ্রুত ও নিখুঁত সিদ্ধান্ত দিতে সাহায্য করবে।’

শুধু সুপার কাপ নয়, বিশ্বকাপের পাশাপাশি প্রযুক্তিটি ব্যবহার হবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রতিটি ম্যাচেও।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন