ওয়ানডে দলের সাথে যোগ দিতে আজ বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৭টা ৪৫ মিনিটে জিম্বাবুয়ের উদ্দেশ্যে দেশ ছাড়বে পেসার এবাদত হোসেন চৌধুরী ও বাঁহাতি ওপেনার নাইম শেখ। চোটে জর্জরিত ওয়ানডে স্কোয়াডে বদলি হিসেবে তাদের দুজনকে নেওয়া হচ্ছে বলে নিশ্চিত করেছে বিসিবি।

 

হ্যামস্ট্রিংয়ে চোট পাওয়ায় জিম্বাবুয়ে সফর থেকে ছিটকে গিয়েছেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান লিটন কুমার দাস। শঙ্কা আছে তাকে এশিয়া কাপের দলে পাওয়া নিয়ে৷ দলের ফিজিও প্রথম ওয়ানডের পর ভিডিও বার্তায় জানিয়েছিলেন, স্ক্যান রিপোর্টে গ্রেড-২ মাসল স্ট্রেইন ধরা পড়েছে। এ ধরনের চোট থেকে সেরে উঠতে ৩ থেকে ৪ সপ্তাহ লেগে যায়। তাই এ সিরিজে আমরা তাকে পাচ্ছি না।’

শুধু লিটন না, প্রথম জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে হ্যামস্ট্রিংয়ে চোট পেয়েছিলেন বাঁহাতি পেসার শরিফুলও। আজ তার রিপোর্ট পাওয়ার কথা। একই ম্যাচে আঙ্গুলে ব্যাথা পেয়েছিলেন মুশফিকুর রহিমও৷ তবে তার চোট গুরুতর নয়। তাকে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে পাওয়া যাবে নিশ্চিত।

টি-টোয়েন্টি সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে চোট পেয়ে আগেই বাদ পড়েছিলেন আরেক উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান নুরুল হাসান সোহান। তার বদলে কাউকে তখন দলে যুক্ত করেনি বিসিবি। তবে এবার লিটনও ইনজুরিতে পড়লে তার জায়গায় নাইম শেখকে ডাকা হয়েছে। শরিফুল ইসলাম যেহেতু এখনো অনিশ্চিত তাই বাড়তি একজন পেসার হিসেবে এবাদত হোসেনকেও নেওয়া হচ্ছে জিম্বাবুয়েতে।

 

আগামীকাল সিরিজে সমতা আমার লক্ষ্যে  দ্বিতীয় ওয়ানডেতে স্বাগতিকদের মুখোমুখি হবে তামিম ইকবালের দল।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন