এশিয়া কাপকে আর ভারত-পাকিস্তান সিরিজ বানানো গেলো না। সুপার ফোরে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে বিদায় অনেকটা নিশ্চিত ভারতের। এর আগে দলটি প্রথম ম্যাচে হেরেছিল পাকিস্তানের বিপক্ষে। অন্যদিকে সুপার ফোরে টানা দুই ম্যাচ জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করলো লঙ্কানরা।

সুপার ফোরে আজ নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে মাঠে নামে আগের ম্যাচে আফগানিস্তানকে হারানো স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তানের কাছে হারা ভারত।

ফাইনাল নিশ্চিত করতে শ্রীলঙ্কার দরকার ছিলো জয়, ভারতকে ৬ উইকেটে হারিয়ে ফাইনাল নিশ্চিতও করে লঙ্কানরা। অন্যদিকে ম্যাচটি হেরে এখন বাকি তিন দলের পাশাপাশি ভাগ্য দেবতার দিকেও চেয়ে থাকতে হবে ভারতের।

প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ভারত মাত্র ১৩ রানে হারায় দুই উইকেট। ৬ রান করে রাহুল আউট হওয়ার পর রানের খাতা না খুলে বিদায় নেন বিরাটও। এরপর অধিনায়ক রোহিত শর্মা ও সূর্যকুমার যাদবের ৯৭ রানের জুটিতে ম্যাচে ফিরে ভারত। দলীয় ১১০ রানের মাথায় ফিরেন অধিনায়ক রোহিত শর্মা। সাজঘরে ফেরার আগে ৪১ বলে ৭২ রানের দানবীয় ইনিংস খেলেন তিনি। রোহিত আউট হওয়ার দুই ওভারের মাথায় ফিরেন সূর্যকুমার যাদবও। ২৯ বলে তিনি করেন ৩৪ রান। হার্দিক পান্ডিয়া ও পান্ত উভয়ে করেন ১৩ বলে ১৭ রান। এরপর অশ্বিনের ব্যাট থেকে আসে ১৫ রান।

নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ভারতের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৭৩ রান।

১৭৪ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে দুই ওপেনার দলকে এনে দেয় ৯৭ রান। দুজনে করেন অর্ধশতক। ১১তম ওভারে ভারতীয় লেগ স্পিনার চাহাল তুলে নেন দুই উইকেট। ১৩ ও ১৪ তম ওভারে আরো দুটি উইকেট হারায় লঙ্কানরা।

তবে রাজাপাকসা ও অধিনায়ক দানুস শানাকার ৬৪ রানের জুটিতে শ্বাসরুদ্ধকর শেষ ওভারে ১ বল হাতে রেখে ম্যাচ জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করে লঙ্কানরা।

রাজাপাকসা করেন ১৭ বলে ২৫ এবং শানাকা করেন ১৮ বলে ৩৩ রান। সর্বশেষ টানা তিন ম্যাচেই দলকে জিতিয়ে মাঠ ছেড়েছেন দানুস শানাকা।

ব্যাট হাতে ও বল হাতে ম্যাচ জয়ে অবদান রাখায় ম্যাচ সেরার পুরস্কারও উঠে লঙ্কান অধিনায়কের হাতে।

ম্যাচ হারলেও ভারতের ফাইনাল খেলার প্রদ্বীপ একেবারে নিভে যায় নি। কাল আফগানিস্তানের বিপক্ষে পাকিস্তান হারলে, পরের ম্যাচে ভারত আফগানদের বিপক্ষে জিতলে এবং পাকিস্তানকে শ্রীলঙ্কা হারাতে পারলে পাকিস্তান, ভারত এবং আফগানদের পয়েন্ট সমান হবে। সেক্ষেত্রে যদি রান রেটে বাকিদের থেকে এগিয়ে থাকে তাহলে ভারত ফাইনালে খেলতে পারবে।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন