নতুন মৌসুমে দারুণ ছন্দে আছেন পিএসজির ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমার জুনিয়র। পিএসজির হয়ে শেষ তিন ম্যাচের সবকটিতে নিজে গোল করেছেন ৫টি। গোল করে থেমে থাকেননি শুধু

সতীর্থদের দিয়েও করিয়েছেন।

অথচ নতুন মৌসুমে পিএসজিতে থাকার কথা ছিলো না নেইমারের। উপযুক্ত দাম পেলে এই ব্রাজিলিয়ানকে ছেড়ে দেওয়ার কথা পরিকল্পনা ছিলো বলে জানিয়েছিলেন খোদ পিএসজি সভাপতি। তবে নেইমার সবকিছুর জবাব দিলেন মাঠের পারফরম্যান্সে।

লিগ ওয়ানে মপেলিয়েরের বিপক্ষে নেইমারের দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে বড় জয় পেয়েছে প্যারিস সেন্ট জার্মেই। নেইমারের জোড়া গোলে প্রতিপক্ষকে ৫-২ গোলে বিধ্বস্ত করেছে পিএসজি।

নিজেদের মাঠে শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলতে থাকে পিএসজি। ফলও পায় হাতেনাতে। ডি-বক্সে ফাউল করলে শুরুতেই পেনাল্টি পায় ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা। তবে কিলিয়ান এমবাপ্পে পেনাল্টি মিস করলে লিড নেওয়া হয়নি পিএসজির। এরপর প্রথম গোলের জন্য অপেক্ষা করতে হয়েছে ম্যাচের ৩৯ মিনিট পর্যন্ত।

৩৯তম মিনিটে রাইটব্যাক ফালায়ে সাকোর আত্মঘাতী গোলে এগিয়ে যায় পিএসজি। এমবাপ্পের নিচু ক্রসে এই মালিয়ান ডিফেন্ডারের পা লেগে বল জালে জড়িয়ে যায়।

প্রথম গোলের পর বিরতিতে যাওয়ার আগে আরো একটি পেনাল্টি উপহার পায় পিএসজি। পেনাল্টি থেকে এমবাপ্পে ভুল করলেও গোল করতে ভুল করেননি নেইমার। তার গোলে ২-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় দল।

বিরতি থেকে ফিরে মাত্র ৫১ মিনিটে নিজের দ্বিতীয় ও দলের হয়ে তৃতীয় গোলটি করেন নেইমার।

৫৮ মিনিটে ওহাবি খাঁজরি একটি গোল শোধ করলে খেলায় কিছুটা উত্তেজনা ফিরে আসে। তবে ৬৯ মিনিটে গোলের দেখা পান এমবাপ্পে। ৮৭ মিনিটে গোল করেন এই মৌসুমেই লিলে থেকে পিএসজিতে যোগ দেওয়া পর্তুগিজ মিডফিল্ডার রেনাতো সানচেস। প্যারিসের ক্লাবটির হয়ে এটাই তার প্রথম গোল। বদলি নেমে মাত্র ১ মিনিটে গোলের দেখা পান এই পর্তুগিজ।

নির্ধারিত সময়ের দুই মিনিট আগে নিজেদের দ্বিতীয় গোল করে মপেলিয়ের। তবে এনজো চাটের করা গোলটি তাদের হারের ব্যবধান কমিয়েছে মাত্র।

২ ম্যাচে শতভাগ জয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পিএসজি। সমান ম্যাচে ৪ পয়েন্ট করে নিয়ে লিল দুইয়ে ও মোনাকো তিনে আছে।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন