কেন তাকে গোলমেশিন ডাকা হয় তা আরো একবার প্রমান করলেন তরুণ তারকা আর্লিং হলান্ড। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে একেরপর এক গোলে মেতেছেন রেকর্ড গড়া-ভাঙ্গার মিছিলে। আজ প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে উলভারহ্যাম্পটনের বিপক্ষে তাদের মাঠেই ম্যান সিটি জিতেছে ৩-০ গোলে। যথারিতি এই ম্যাচেও গোল করেছেন হলান্ড। গড়েছেন রেকর্ড। বাকি গোল দুটি এসেছে গ্রিলিশ ও ফোডেনের পা থেকে।

প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের শুরুর মিনিটেই ডি ব্রুনাইয়ের ক্রস থেকে বল পেয়ে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন জ্যাক গ্রিলিশ। নতুন মৌসুমে প্রিমিয়ার লিগে এটি তার প্রথম গোল।

১৬ তম মিনিটে ম্যান সিটির হয়ে ব্যবধান দ্বিগুন করেন আর্লিং হলান্ড। প্রতিপক্ষের ডি-বক্সের কাছে বার্নাদো সিলভা থেকে বল পেয়ে প্রতিপক্ষের একজন খেলোয়াড়কে কাটিয়ে ডান পায়ের শটে বল জালে জড়ান এই নরওয়েজিয়ান স্ট্রাইকার।প্রিমিয়ার লিগে ৭ ম্যাচে এই নিয়ে ১১তম গোল করলেন হলান্ড।

আগস্ট মাসে খেলা ৫ ম্যাচে দুটি হ্যাটট্রিকসহ মোট নয় গোল করা হলান্ড গড়েন প্রিমিয়ার লিগের ইতিহাসে মৌসুমের শুরুর মাসে কোনো খেলোয়াড়ের সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ড। এখানেই শেষ নয়, গত মাসের প্রিমিয়ার লিগের মাস সেরা ফুটবলারের খেতাব পাওয়া হলান্ড আরো একটি কীর্তি গড়েন। প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে এই প্রতিযোগিতায় নিজের প্রথম চারটি অ্যাওয়ে ম্যাচে গোল পেয়েছেন তিনি।

হলান্ডের গোলের পর ম্যাচে ফেরার জন্য বেশ কয়েকবার চেষ্টা করে স্বাগতিকরা। তবে সিটির ব্রাজিলিয়ান গোলরক্ষক এডারসনের নৈপুণ্যে সফল হয়নি তারা।

ম্যাচের ৩৩ মিনিটে গ্রিলিশকে বাজেভাবে ট্যাকল করে সরাসরি লালকার্ড দেখে কলিনস। দশজনের দলটি পরে মনোযোগ দেয় রক্ষণে। এতে সফলও বলা যায় দলটিকে। এরপর তাদের জালে মাত্র একবার বল পাঠাতে পারেন সিটির খেলোয়াড়রা। ৬৯ মিনিটে ডি ব্রুইনার পাসে দারুণ এক ফ্লিকে গোলটি করেন ফিল ফোডেন। এই অ্যাসিস্টে প্রিমিয়ার লিগে খেলা ২১৭ ম্যাচে ১৫০টি গোলের সঙ্গে নিজের নামটি জড়িয়ে নিলেন ডি ব্রুইনা। ১৫০টি গোলের মধ্যে নিজে করেছেন ৫৮টি সতীর্থদের দিয়ে করিয়েছেন ৯২ টি।

ম্যাচের ৭০তম মিনিটে খেলা বন্ধ রেখে এক মিনিট দাঁড়িয়ে হাততালি দিয়ে প্রয়াত রাণী এলিজাবেথকে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

এই জয়ে ৭ ম্যাচে ১৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে ম্যান সিটি। এক ম্যাচ কম খেলে দুইয়ে আর্সেনাল। মোট ১১ গোল করে ধরা ছোঁয়ার বাইরে আর্লিং হলান্ড।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন