এশিয়া কাপ ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপকে সামনে রেখে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলে অধিনায়ক, ওপেনার,খেলার ধরণের পর পরিবর্তনের হাওয়া লেগেছে কোচের দায়িত্বেও। বর্তমান কোচ রাসেল ডমিঙ্গোকে বাদ দিয়ে এশিয়া কাপে দলের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ব্যাটিং পরামর্শক ও জাতীয় দলের সাবেক প্রধান কোচ জেমি সিডন্সকে।

টি-টোয়েন্টিতে ব্যর্থতার বৃত্ত থেকে বেরিয়ে আসতে বাংলাদেশ দলে আনা হয়েছে ব্যাপক পরিবর্তন। মাহমুদুল্লাহ রিয়াদকে বাদ দিয়ে টেস্ট অধিনায়ক সাকিব আল হাসানকে দেওয়া হয় টি-টোয়েন্টির দায়িত্ব। লিটন কুমার দাসের ইনজুরি ও তামিম ইকবালের অবসরে ওপেনিংয়ে শূনস্থান তৈরি হওয়ায় সেখানে বিবেচনা করা হচ্ছে সাকিব,মুশফিক, মাহাদিদের। পাওয়ার প্লে ওভার কাজে লাগানো থেকে শুরু করে হার্ড হিটিংয়ের জন্য করা হচ্ছে নতুন পরিকল্পনা। সব মিলিয়ে এশিয়া কাপে নতুন এক বাংলাদেশকে দেখা যেতে পারে। তাই পরিবর্তন আনা হচ্ছে প্রধান কোচের দায়িত্বেও।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ডোমিঙ্গকে বাদ দিয়ে জেমি সিডন্সকে প্রধান কোচ করার কথা ভাবছে বিসিবি। পরিকল্পনা আছে নতুন আরেকজন কোচ অন্তর্ভুক্ত করারও।

আজ মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামের বিসিবি কার্যালয়ে টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান ও ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের সঙ্গে সভার পর বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসানও দিয়েছেন কোচিং স্টাফে বদলের আভাস, ‘টি-টোয়েন্টিতে আমরা শক্তিশালী নই। এটা নিয়ে কী করা যায়, ভাবতে গিয়ে আমরা একটা সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এশিয়া কাপ থেকেই দলের মানসিকতা, চিন্তাভাবনা সবকিছু বদলে ফেলতে চাচ্ছি। আমরা দেখতে চাই নতুন করে শুরু করা যায় কি না।’

বর্তমানে প্রধান কোচ ডোমিঙ্গ ছুটিতে নিজ দেশ দক্ষিণ আফ্রিকায় আছেন। আগামীকাল দেশে আসার কথা তার। তিনি আসলে আাগমী পরশুদিন তার সাথে বৈঠক করে বিসিবি আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়ার কথা ভাবছে।

যদি ডোমিঙ্গ বিসিবির প্রস্তাবে রাজি হয় তাহলে টি-টোয়েন্টিতে সিডন্স ও বাকি দুই ফরমেটে কোচের দায়িত্বে থাকবেন তিনি। আর আফ্রিকান কোচ রাজি না হলে বিসিবি হয়তো নতুন পথ বেছে নিবে।

অন্যদিকে টি-টোয়েন্টি দলের দায়িত্ব নিতে নাকি মুখিয়ে আছেন সিডন্স। যা বোঝা গেলো বিসিবি সভাপতির কথায়, ‘কদিন আগে জেমি সিডন্স আমার বাসায় এসেছিল। কিছু বিষয় নিয়ে আমরা আলোচনা করছিলাম। যদি আমরা জিততে চাই বা ভালো করতে চাই টি-টোয়েন্টির ভাবনাটা পরিবর্তন করতে হবে। এটার কোনো বিকল্প নেই। ১৩০ করে তো ম্যাচ জিততে পারবেন না। আমাদের ১৮০-২০০ রান করতে হবে। এখন আমাদের পরিকল্পনায় সেটা করার কোনো লক্ষণই দেখছি না। নতুন কী করা যায়, এটা নিয়ে আমরা আলোচনা করেছি। তখন জেমি এসে বলল যে সেও নাকি এটাতে খুবই আগ্রহী।”


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন