ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার নেইমার জুনিয়র ও আর্জেন্টাইন যাদুকর লিওনেল মেসি দুজনই খেলেন ফরাসি ক্লাব পিএসজিতে। এর আগে একসাথে দুজনের জুটি দেখা গিয়েছিলো স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনাতে। দুই তারকার একসাথে খেলার কারণে পুরো বিশ্বে ক্লাব দুটোর প্রতি সমর্থকদের আগ্রহও কম নয়, তবে ক্লাব দুটির সমর্থকদের জন্য এবার এসেছে এক দূঃসংবাদ।

উয়েফার বেঁধে দেওয়া আর্থিক সংগতি নীতি (এফএফপি) লঙ্ঘন করায় ইউরোপের বড় ২০টি ক্লাবের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে উয়েফা। যেখানে আছে বার্সেলোনা ও পিএসজির নাম। ২০২০–২১ মৌসুম নিয়ে করা এই তদন্তে নাম আছে ইতালির ক্লাব ইন্টার মিলান, এএস রোমা, জুভেন্টাসেরও।

জনপ্রিয় স্প্যানিশ গণমাধ্যম মার্কার প্রতিবেদন অনুযায়ী , আর্থিক সংগতি নীতিমালা ভাঙায় শাস্তি পেতে পারে৷ পিএসজি, বার্সেলোনা, জুভেন্টাস, রোমা, মার্শেই ও ইন্টার মিলান।

ব্রিটিশ দৈনিক দ্য টাইমস বিষয়টি আরো পরিস্কার করেছে, তাদের তথ্য অনুযায়ী, পিএসজি ও মার্শেইকে আর্থিকভাবে জরিমানা করা হতে পারে। তবে ইতালিয়ান ক্লাব ইন্টার, জুভেন্টাস, রোমাসহ স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনাকে মুখোমুখি হতে পারে আরো কঠোর শাস্তির। দলবদলের মৌসুমে খেলোয়াড় কেনা কিংবা প্রতিযোগিতা থেকে নিষিদ্ধ করা হতে পারে ক্লাবগুলোকে।

ফরাসি সংবাদমাধ্যম লেকিপের প্রতিবেদন অনুযায়ী, গত তিন বছরে প্রতি মৌসুমেই প্রায় তিন কোটি ইউরো লোকসান গুনেছে পিএসজি। এতে ভঙ্গ হয়েছে উয়েফার আইন, বিষয়টি শুধরে নিতে ফরাসি ক্লাবটিকে তিন বছর সময় বেঁধে দিয়েছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের এই নিয়ন্ত্রক সংস্থা।


সর্বশেষ খবর পেতে আমাদের Google News ফিডটি ফলো করুন